মালয়েশিয়ায় অবৈধদের বৈধ হতে সহযোগিতা করতে নতুন পদ্ধতি চালু করেছে বাংলাদেশ হাইকমিশন

0
37

মালয়েশিয়া সরকারের ঘোষণা অনুযায়ী রি-ক্যালিব্রেশন প্রোগ্রামের আওতায় দেশটিতে থাকা অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসীদের বৈধ হওয়ার ক্ষেত্রে কাজ করবে বাংলাদেশ হাইকমিশন। মালয়েশিয়ার মানবসম্পদ মন্ত্রী সারাভানান বাংলাদেশ হাইকমিশনের তীব্র সমালোচনার পর স্থানীয় গণমাধ্যম দি স্টারকে দেয়া এক বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

এদিকে ১৫ই এপ্রিল (বৃহস্পতিবার) চাকরির খোঁজ নামক ওয়েব পোর্টালটি চালুর খবর শুনে তীব্র সমালোচনামূলক প্রতিক্রিয়া জানিয়েছেন মালয়েশিয়ার মানবসম্পদ মন্ত্রী দাতুক সেরি এম সারাভানান। তিনি বলেন আমার মন্ত্রণালয়কে না জানিয়ে বাংলাদেশ হাইকমিশন এমন একটি ওয়েব পোর্টাল চালু করে তাদের দায়িত্বহীনতার পরিচয় দিয়েছে।

বাংলাদেশ হাইকমিশনার এর পক্ষ হতে এমন বিষয়ে তাকে জানানো হয়নি বলে মন্তব্য করেন তিনি। তিনি আরও বলেন বাংলাদেশ হাইকমিশনের এমন কার্যক্রমে মালয়েশিয়ার প্রায় ৪০০ এর বেশি বৈধ কর্মসংস্থান এজেন্সি হুমকির মুখে পড়ে ক্ষতিগ্রস্ত হবে।

তবে এম সারাভানানের এমন মন্তব্যের জবাবে বাংলাদেশ হাইকমিশনার স্থানীয় গণমাধ্যম দি স্টারকে জানান, মালয়েশিয়া সরকার রি-ক্যালিব্রেশন প্রোগ্রামের আওতায় অবৈধদের বৈধ হওয়ার সুযোগ দিয়েছে যা চলতি বছরের জুন পর্যন্ত চলবে।

এই প্রক্রিয়ায় অবৈধ অভিবাসীদের সহোযোগিতা ও এই প্রক্রিয়াটি সফল করার উদ্দেশ্যে আমরা এমন জব পোর্টাল চালু করেছি যা আমাদের দায়িত্ববোধের মধ্যে পড়ে। তিনি আরও উল্লেখ করেন রি-ক্যালিব্রেশন প্রক্রিয়াটি সফল করার জন্য দেশেটির পক্ষ হতে হাইকমিশনের সহায়তা চাওয়া হয় এবং স্থানীয় কোম্পানি মালিক ও নিয়োগকর্তাদের তরফ থেকেও এমন সহায়তা চাওয়া হয়েছিলো।


তারই পরিপ্রেক্ষিতে সকল অবৈধ বাংলাদেশি অভিবাসীদের এক জায়গায় নিয়ে আসার লক্ষ্যে এবং নিয়োগকর্তাগণ যাতে কর্মীদের খুব সহজেই খুঁজে নিতে পারেন সেই লক্ষ্যে এই চাকরির খোঁজ নামক ওয়েবসাইট চালু করা হয়েছে যার মাধ্যমে অবৈধ অভিবাসীগণ কোনো ধরনের দালাল বা মধ্যসত্ব ভোগী ছাড়াই সহজেই রি-ক্যালিব্রেশন প্রোগ্রামের মাধ্যমে বৈধ হতে পারবে।

উল্লেখ্য যে, গত ৮ই এপ্রিল (বৃহস্পতিবার) বাংলাদেশ হাইকমিশন অবৈধ বাংলাদেশিদের বৈধ হতে সহোযোগিতার উদ্দেশ্যে ও প্রবাসীদের নিরাপদ কর্মসংস্থানের জন্য “চাকরির খোঁজ” নামে একটি ওয়েব পোর্টাল উদ্ভোদন করেছে।

ঐ ভার্চুয়াল উদ্ভোদনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রী ইমরান আহমদ, পররাষ্ট্রমন্ত্রী শহরিয়ার আলম ও মালয়েশিয়ায় নিযুক্ত রাষ্ট্রদূত মো. গোলাম সারওয়ার সহ মালয়েশিয়ার শ্রম বিভাগের ডেপুটি ডিরেক্টর জেনারেল মোহাম্মদ আজরি আব্দুল ওয়াহাব, প্রবাসী কল্যাণ সচিব ড. আহমেদ মনিরুস সালেহিন ও টেকনোলজি পার্টনার ডটলাইনের প্রেসিডেন্ট মাহবুবুল মতিন উপস্থিত ছিলেন। আর এই অনুষ্ঠানটি বাংলাদেশ হাইকমিশনের ফেসবুক পেজের মাধ্যমে সরাসরি সম্প্রচার করা হয়েছিলো।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here